COMPARE AND GO FOR THE BEST PRICE...

জুলাই মাসেই বন্ধ করে দেয়া হবে সব অবৈধ মুঠোফোন

পূর্বের পরিকল্পনা অনুযায়ী, আগামী ১লা জুলাই হতে সব ধরণের অনিবন্ধিত এবং অবৈধ মোমাইলফোন বন্ধের স্বংক্রিয় কার্যক্রম শুরু করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। তবে এখন অবধি যেসকল গ্রাহক অনিবন্ধিত এবং অবৈধ মোবাইল ব্যবহার করছেন তারা ফোনগুলো নিবন্ধন করার সুযোগ পাবেন।
৩১ মে সোমবার, একটি বিফ্রিংয়ে এসব তথ্য জানিয়েছেন- বিটিআরসির মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. শহিদুল আলম।

দেশে এই প্রথম- অবৈধ ভাবে দেশে আসা, অনিবন্ধিত এবং নকল মোবাইল সংযোগগুলো বন্ধ করতে ‘ন্যাশনাল ইকুইপমেন্ট আইডেন্টিটি রেজিস্ট্রার’ বা ’এনইআইআর’ প্রযুক্তির প্রয়োগ করা হবে। এরই মধ্যে বিটিআরসি বৈধ মোবাইলগুলোর একটি তালিকা তৈরি করেছে। এবং আসছে ৯ জুনের মধ্যেই এনইআরআইআর-সিস্টেমটির ইনস্টলেশন প্রক্রিয়া শেষ হবে বলে বলা হয়েছে। তবে অনিবন্ধিত ফোনগুলো চিন্হিত করে বন্ধ করার কার্যক্রম শুরু হবে আগামী ১লা জুলাই থেকে।

জনাব, মো. শহিদুল আলম (বিটিআরসির মহাপরিচালক) বলেন- আমাদের দেশে বর্তমানে আনুমানিক ১৫ কোটির মত মোবাইলফোন ব্যবহার করা হচ্ছে। যার ৪০ ভাগই অনিবন্ধিত এবং বিভিন্ন উপায়ে রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে অবৈধভাবে দেশের বাজারে প্রবেশ করেছে কিংবা বিদেশ হতে নিয়ে আসা হচ্ছে। যে সকল গ্রাহকগণ ইতিমধ্যে অনুমোদনহীন এসব ডিভাইস ব্যবহার করা শুরু করেছেন, ১লা জুলাইয়ের পূর্বেই তাদের ফোনগুলো এনআইআরআইপি’র নিবন্ধন প্রক্রিয়ার আওতায় নিয়ে আসা হবে।

বিটিআরসি আরও জানায় যে- তাদের ডাটাবেজে এপর্যন্ত আনুমানিক ১৪.৫ কোটি আইএমইআই নম্বর যুক্ত করা হয়ে গিয়েছে। এবং তাদের নিকট ৭ কোটি ১৯ লাখ হ্যান্ডসেটের তথ্য সংরক্ষিত রয়েছে। পয়লা জুলাই হতে এনইআইআর সিস্টেমটির কার্যক্রম শুরু হলে গ্রাহকগণের নিকট থাকা মোবাইলগুলো স্বয়ংক্রিয়ভাবে নিবন্ধন এর আওতায় এসে যাবে। এবং এর পর থেকে যেসমস্ত মোবাইল নিয়ম বহির্ভুত ভাবে দেশে ঢুকবে, শুধুমাত্র নির্দিষ্ট প্রক্রিয়া অনুসরণ করেই সেগুলো ব্যবহার করা যাবে।

মূলত এনআইইআর নিবন্ধন কার্যক্রমটি চুরি ও ক্লোনিং ঠেকাতে এবং এবং রাজস্ব আদায়ে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে বলে মন্তব্য করেন- মো. শহিদুল আলম (ব্রিগেডিয়ার জেনারেল)। একই সাথে তিনি আরও যোগ করেন- এই নিবন্ধন কার্যক্রমটি শুরু করার পূর্বে, বিটিআরসির প্রথম টার্গেট হল নিবন্ধন সম্পর্কে মানুষকে অবগত করা। এ লক্ষে জুনের শুরু থেকে (প্রথম সপ্তাহ) বিটিআরসি সারাদেশব্যাপী প্রচার প্রচারণা চালু করবে। যাতে করে দেশের প্রত্যন্ত অন্ঞলের মানুষজনও নিবন্ধন প্রক্রিয়াটি সম্মন্ধে জানতে পারে।

Leave a Comment

error: Content is protected !!